ঢাকা, ০৪ ডিসেম্বর, ২০২১
SylhetNews24.com
শিরোনাম:

আগামীর সাংবাদিকতার জন্য `কিংবদন্তী` হাসান শাহরিয়ার

বিশেষ প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২৬ এপ্রিল ২০২১  

উপমহাদেশের প্রখ্যাত সাংবাদিক কমনওয়েলথ জার্নালিষ্ট এসোসিয়েশন‘র(সিজেএ)  ইমেরিটাস সভাপতি এবং জাতীয় প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ও দৈনিক ইত্তেফাক‘র সাবেক নির্বাহী সম্পাদক বৃহত্তর সিলেটের কৃতি সন্তান হাসান শাহরিয়ারের ৭৫ তম জন্মদিন ছিল ২৫ এপ্রিল রবিবার। 

এ উপলক্ষ্যে তার আত্মীয় স্বজন ও শুভাকাঙ্খিদের উদ্যেগে মরহুমের মাজার জিয়ারত ও বিশেষ দোয়া অনুষ্টিত হয়। ঢাকা, সিলেট, চট্রগ্রাম, ভোলায় একই কর্মসূচী পালিত হয়। 

এদিকে সিজেএ‘র বাংলাদেশ চাপ্টার উদ্যোগে রবিবার বিকাল ৪ টা থেকে সাড়ে ৫ টা পর্যন্ত এক ভার্চুয়াল এক স্মরণ সভা অনুষ্টিত হয়। সভায় হাসান শাহরিয়ারের বর্ণাঢ্য জীবন ও কর্ম নিয়ে বিস্তর আলোচানা হয়। 

ভার্চুয়েল সভায় যুক্ত হয়ে  সাবেক পররাষ্ট্র সচিব সমশের মবিন চৌধূরী বলেন, হাসান শাহরিয়ার সাংবাদিকতা করেছেন নিরপেক্ষভাবে। তিনি সাংবাদিকতা জগতে ছিলেন উজ্জ্বল নক্ষত্র। সততা ও নিষ্টর সাথে কাজ করে দেশ-সমাজ ও সাংবাদিকতার দৃষ্টান্ত রেখে গেছেন। সমশের মবিন বলেন, তার সাংবাদিতার মান ইতিহাস হয়ে থাকেবে।  

সভায় বক্তরা বলেন, হাসান শাহরিয়ার বাংলাদেশের সাংবাদিকতাকে বিশ্বদরবারে  পৌছে দিয়ে দেশের জন্য যে সম্মান এনে দিয়েছেন তা বিরল। সাংগঠনিক দক্ষতা বলে তিনি আন্তর্জাতিক সংগঠন ও বহু ফোরামে নেতৃত্ব দিয়েছেন। তিনি সাংবাদিকতার মাধ্যমে দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে অনেক কাজ করেছেন । 

বক্তারা বলেন, তার শূণ্যতা পুরণ হওয়ার মত নয়। তিনি যে সততা ও দক্ষতার সাথেই সাংবাদিকতা করেছেন তাই নয়। তিনি ছিলেন সর্বমহলে গ্রহণ যোগ্য ব্যক্তিত্ব। বক্তরা বলেন, আগামীর সাংবাদিকতার জন্য হাসান শাহরিয়ার কিংবদন্তী। তাকে অনুসরণ করলে এদেশের সাংবাদিকতার মান উন্নত হবে। সাংবাদিকদের মর্যাদা বাড়বে। তিনি স্বাধীনতা ও মুক্তিযোদ্ধে বিশ্বাসী ছিলেন। তিনি কাজ করেছেন দলমতের উর্ধে। তারা বলেন, তিনি অকৃতদার থাকলেও পারিবারিক জীবনেও ছিলেন দায়িত্ব সম্পন্ন এবং বন্ধুবৎসল।   

সিজেএ‘র বাংলাদেশ চাপ্টার এর সভাপতি পারভিন চৌধূরীর সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারী জেনারেল ভোরের কাহজ সম্পাদক শ্যামল দত্তের পারিচালনায় ভার্চুয়েল সভায় অংশ গ্রহণ করেন, কমনওয়েলথ সোসাইটির ফারুক, সিজেএ‘র বাংলাদেশ চাপ্টার এর সাবেক সভাপতি ফরিদ হোসেইন,ব র্তমান সহ-সভাপতি আবদুল জলিল ভূইয়া, কোষাধ্যক্ষ চপল বাসার, হাইকোর্টের সিনিয়র আইনজীবি জাহাঙ্গীর আলম চৌধূরী, সিনিয়র সাংবাদিক বাদল রায়, প্রণব সাহা, রেজাওয়ানুল হক রাজা  এবং যুগ্ম সম্পাদক ওসমান গণি মসনুর ও হুমায়ূন রশিদ চৌধূরী যথাক্রমে চট্রগ্রাম ও সিলেট থেকে যোগ দেন। 

   
সভার শুরুতে হাসান শাহরিয়ারের মৃত্যুতে সিজেএ ইন্টারন্যাশনাল এর বিভিন্ন  পর্যায়ের কর্মকর্তাদের শোক বার্তা পাঠ করে শুনান সেক্রেটারী জেনারেল শ্যামল দত্ত। 
 বিশ্বখ্যাত আন্তর্জাতিক সাময়িকী নিউজউইক-এ তিনি কাজ করেছেন তিন দশক। হাসান শাহরীয়ারের জন্ম সুনামগঞ্জ শহরের হাছননগরে। তিনি সুনামগঞ্জ সরকারী জুবিলী স্কুল থেকে ৬২ সালে মাধ্যমিক ও সুনামগঞ্জ কলেজ থেকে কৃতিত্বের সাথে উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করেন। পরে করাচি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিএ (অনার্স) এবং এমএ ডিগ্রী লাভ করেন। বর্ণাঢ্য জীবন-কাহিনির অধিকারি  হাসান শাহরীয়ারের জন্মঃ ১৯৪৭ সালে ২৫ এপ্রিল। তার পিতা ছিলেন মরহুম মকবুল হোসেন চৌধুরী তৎকালীন মুসলিম সাংবাদিকতার অগ্রদুত।  

হাসান শাহরিয়ার সাংবাদিকতায় উচ্চতর প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। তিনি বাংলাদেশ প্রেস ইন্সটিটিউট, কমনওয়েলথ প্রেস ইউনিয়ন এর ফেলো হিসেবে  লন্ডন, কার্ডিফ, প্লেমাউথ, এডিনবরা প্রভৃতি স্থানে সাংবাদিকতার ক্ষেত্রে উচ্চতর প্রশিক্ষণ গ্রহন করেন। ওই সময় তিনি অক্সফোর্ডের এলিজাবেথ হাউজ এবং ব্রাডফোর্ডের টেলিগ্রাফ এন্ড আর্গস পত্রিকার সাথে সংযুক্ত ছিলেন। তিনি বাংলাদেশ প্রেস ইন্সটিটিউট ,ফিচার এজেন্সি নিউজ নেটওয়ার্ক, এমআরডিআইএস সহ আরো কয়েকটি সংস্থার নিয়মিত প্রশিক্ষক ছিলেন। তিনি কারাচিতে দৈনিক ডন ও এক সাথে ইত্তেফাকে কাজ করেন। 

তিনি বৈদেশিক সংবাদদাতা সমিতি-ওকাব এর সভাপতি ছিলেন পর পর দুই মেয়াদে (২০০৩-২০১২)  সুনামের সঙ্গে সাংবাদিকদের আন্তর্জতিক সংগঠন কমনওয়েলথ জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন (সিজিএ) এর ইন্টারন্যাশনাল প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালনের পর  ২০১২ সালে সিজিএ এর ইন্টারন্যাশনাল প্রেসিডেন্ট অ্যামিরিটার্স নির্বাচিত হন। তিনি দুবাই-এর খালিজ টাইমএবং ভারতের ‘ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস  দৈনিক এশিয়ান এজ, দৈনিক ড্যাকান হেরাল্ড পত্রিকার বাংলাদেশের প্রতিনিধি ছিলেন। 


তিনি তদানীন্তন পাকিস্তানের প্রথম সারির নেতাদের সাথে ঘনিষ্ট ভাবে মেলামেশার সুযোগ পান তাঁদের মধ্যে অন্যতম ছিলেন,-মিয়া মমতাজ দৌলতানা, আব্দুল ওয়ালি খান, খান আব্দুল কাইয়ুম খান, নওয়াবজাদা নসরুল্লাহ খান, জুলফিকার আলী ভুট্টু, এয়ার মার্শাল আসগর খান (অবঃ) , নওয়াব আকবর বুগতি, গউস বকস বিজেঞ্জো, খায়ের বকস মারী, আতাউল­া খান মঙ্গল, মাহমুদুল হক উসমানি, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, মওলানা আব্দুল হামিদ খান ভাসানী, আতাউর রহমান খান, ফজলুল কাদের চৌধুরী, খান এ সবুর, মশিউর রহমান যাদু মিয়া, তাজুদ্দিন আহমদ, খন্দকার মুস্তাক আহমদ, এ এইচ এম কামরুজ্জামান প্রমুখ।
তিনি আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন অনেক নেতা ও ব্যক্তির সাক্ষাৎকার গ্রহন করেছেন। তাদের মধ্যে কয়েকজন হলেনঃ ভারতের প্রধানমন্ত্রী মিসেস ইন্দিরা গান্ধী, চন্দ্র শেখর, পি ভি নরসিমা রাও, কাশ্মিরি নেতা শেখ আব্দুল­াহ, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী জুলফিকার আলী ভুট্টু, নওয়াজ শরীফ, বেনজীর ভুট্টু, প্রেসিডেন্ট জিয়া-উল-হক, পারভেজ মোশারফ। জাপানের প্রধানমন্ত্রী তশিকু কাইফু, কম্বোডিয়ার প্রিন্স নরোদম সিহানুক,নোবেল বিজয়ী মাদার তেরেসা, ক্রিকেট তারকা ইমরান খান। 

তিনি অনেক আন্তর্জাতিক সেমিনারে অংশ গ্রহন করেন। সাংবাদিকতায় বিশেষ অবদান রাখার জন্য ১৯৯৬ সালে জালালাবাদ ইয়থ ফোরাম তাকে একুশে পদক ও বাংলাদেশ ইন্টার রিলিজিয়ার্স ব্রাদার হুড এসোসিয়েশন পদক। শিলিগুড়ি (ভারত) উত্তর বঙ্গ নাট্য জগৎ তাকে বিশেষ ভাবে সম্মানিত করেছে। সিলেটের রাগিব-রাবেয়া ফাউন্ডেশন ২০১১ সালে তাকে একুশে সম্মাননা প্রদান করে। 

ধর্মভীরু সদালাপি ও বন্ধু বৎসল হাসান শাহরিয়ার ২০০০ সালে প্রথম হজব্রত পালন করেন। সর্বশেষ ২০২০ সালের ৪ জানুয়ারী পবিত্র ওমরাহ পালন করেন। ৬০ এর দশকে দৈনিক ইত্তেফাকের সুনামগঞ্জ সংবাদদাতা হিসেবে কাজ শুরু করে নির্বাহি সম্পাদক হয়ে অবসরে যান। পরে তিনি চট্রগ্রাম থেকে প্রকাশিত ডেইলী ‘পিপলস ভিউ‘র প্রধান সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। ঢাকা থেকে প্রকাশিত ‘ডেইলী সান’ এর সম্পদকের দায়িত্ব কিছুদিন পালন করেছেন। তিনি নিয়মিত দৈনিক সমকালে কলাম লিখতেন। 

আরও পড়ুন
সংগঠন সংবাদ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত