ঢাকা, ২১ জানুয়ারি, ২০২১
SylhetNews24.com
শিরোনাম:
করোনার টিকা পেলেই সম্মুখসারির যোদ্ধাদের অগ্রাধিকার: প্রধানমন্ত্রী অনেকদূর এগিয়েছি সত্য,তবে যেতে হবে আরও বহুদূর:প্রধানমন্ত্রী সত্য বলায় হয়তো আমার চাকরিও থাকবে না:ওবায়দুল কাদেরের ভাই ভ্যাকসিন কবে আসবে সেটা নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না: ভারতীয় হাইকমিশন টিকা নিয়ে সরকার ‘তেলেসমাতি’ খেলা শুরু করেছে:রিজভী ২৮ জন সিলেটিসহ মাত্র ৩৪ যাত্রী নিয়ে লন্ডন থেকে আসলো বিমান

সিসিকের বিরুদ্ধে মানববন্ধনে উপস্হিত হয়ে মেয়র আরিফের চমক

বিশেষ প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২৭ নভেম্বর ২০২০  

সিসিকের বিরুদ্ধে এ মানববন্ধনে মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী নিজে উপস্থিত হয়ে চমক দেখিয়েছেন। নগরীর চৌহাট্টাস্থ সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার প্রাঙ্গেণে অতি প্রয়োজনে একটি কদম গাছ কাটার  বিষয়টি নিয়ে বক্তব্যের মাধ্যমে তাঁর অবস্থান পরিস্কার করেছেন। 

গাছ কাটার প্রতিবাদে ‘ভূমিসন্তান বাংলাদেশ’র মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করে মেয়র আরিফুল হক নেতৃবৃন্দের উদ্দেশ্যে করে বলেন, আপনারা আজ যেভাবে গাছ কাটার প্রতিবাদে সোচ্চার হয়েছেন- ঠিক সেভাবে নগরীর বিভিন্ন স্থানে পাহাড়-টিলা কাটার বিরুদ্ধেও প্রতিবাদ করুন। এক-দুইদিন নয়, লাগাতার আন্দোলন করুন। আমি আপনাদের সঙ্গে থাকবো।

তিনি সিলেট নগরীকে সবুজায়নের জন্য নিজের পরিকল্পনার কথা জানিয়ে সবার সহায়তা চেয়ে বলেন, ইতোমধ্যে আমি নগরীর বেশ কয়েকটি দীঘি খননের প্রস্তাব দিয়েছি। নগরীর সংস্কার করা প্রতিটি সড়কের আইল্যান্ডে গাছের চারা লাগানোর উদ্যোগ নিয়েছি। তাই গাছ কাটা হোক এটা আমিও চাই না। কিন্তু এখানে যে গাছটি কাটা হয়েছে এটা আসলে কোনোভাবেই কাম্য ছিল না।

তাই আমি যখন জানলাম মানববন্ধনের কথা, তখন আমিও ছুটে এসেছি। এখানে এসে বৃক্ষের প্রতি ভালোবাসা থেকে মানুষের উপস্থিতি দেখে আমি অত্যন্ত আনন্দিত। আশা করি আগামীতে যদি বিশেষ প্রয়োজনে গাছ কাটতেই হয় তাহলে যথাযথ পরিকল্পনা করে, আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

বৃহস্পতিবার (২৬ নভেম্বর) বিকেল ৪টায় সিলেট কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে ‘ভূমিসন্তান বাংলাদেশ’র উদ্যোগে আয়োজিত মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করে সিসিক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, এখানে কারা কী ব্যানারে মানববন্ধন করছেন সেটি বিষয় নয়, তাদের মূল্যায়নের বিষয়কে সামনে রেখে আমি এই আয়োজনে অংশ নিয়েছি। একদল তরুণ পরিবেশ রক্ষায় সোচ্চার হয়েছেন- এটি অত্যন্ত প্রশংসনীয়।

মেয়র বলেন, ‘ভূমিসন্তান বাংলাদেশ’র নেতৃবৃন্দ নগরীর যে রাস্তায় গাছ লাগাতে চান আমাকে বলবেন, আমি সর্বাত্মক সহযোগিতা করবো। সিলেটকে ‘গ্রিন সিটি’ হিসেবে গড়ে তুলতে আমরা সবাই একত্রে কাজ করবো।

উল্লেখ্য, বুধবার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকায় একটি কদম গাছ সিটি করপোরেশনের নির্দেশে কেটে ফেলেন শ্রমিকরা। এছাড়াও চলতি বছরের শুরুতে সড়ক প্রশস্তকরণের জন্য শহীদ মিনার চত্বরের আরও কয়েকটি গাছ কেটে ফেলা হয়। এর প্রতিবাদে বৃহস্পতিবার ‘ভূমিসন্তান বাংলাদেশ’র ব্যানারে কিছু তরুণ-তরুণী মানবন্ধনের আয়োজন করে। মানববন্ধনে বক্তারা অপরিকল্পিতভাবে নগরীতে গাছ কর্তন না করতে সিসিকের প্রতি আহ্বান জানান।

ভূমিসন্তান বাংলাদেশের প্রধান সমন্বয়ক আশরাফুল কবিরের স্বাগত বক্তব্যের মধ্য দিয়ে শুরু হওয়া মানববন্ধনের সঞ্চালনা করেন আবুবকর আল আমিন।

এ সময় মানববন্ধনে সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন- সম্মিলিত নাট্য পরিষদ সিলেটের সভাপতি মিশফাক আহমদ মিশু, সাধারণ সম্পাদক রজত কান্তি গুপ্ত, বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন সিলেটের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সামির মাহমুদ, সম্প্রতি গড়ে ওঠা নাগরিক প্লাটফর্ম 'দুষ্কাল প্রতিরোধে আমরা' এর সংগঠক রাজিব রাসেল প্রমুখ।
 

আরও পড়ুন
এক্সক্লুসিভ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত