ঢাকা, ০৯ মে, ২০২১
SylhetNews24.com
শিরোনাম:
মহাখালীতে দেশের সবচেয়ে বড় করোনা হাসপাতাল চালু হচ্ছে রবিবার করোনায় এক দিনে রেকর্ড সর্বোচ্চ ১০১ জনের মৃত্যু খালেদা জিয়ার চিকিৎসা চলবে বাসায়, একটি নতুন ওষুধ যুক্ত দিল্লিতে একটি শয্যায় দু’জন কোভিড রোগী, দৈনিক সংক্রমণ ২ লাখ দ্বিতীয় ডোজেই শেষ নয়, নিতে হতে পারে তৃতীয় ডোজও সিলেটের গোলাপগঞ্জে মন্দিরে তরুণীকে ধর্ষণচেষ্টা, পুরোহিত গ্রেফতার

মিয়ানমারে ক্ষমতা দখলের পর রক্তক্ষয়ী দিন,গুলিতে নিহত ৭১

অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৬ মার্চ ২০২১  

মিয়ানমারের সেনাবাহিনী ক্ষমতা দখলের পর রবিবার ছিল সবচেয়ে রক্তক্ষয়ী দিন। এদিন গুলিতে ৩৯ জন মারা যান। গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত হন দেড় শতাধিক। 

আহতদের মধ্যে  সোমবার মারা গেছেন ৩২ জন। এ নিয়ে রবিবারের সহিংসতায় মোট মারা গেলেন ৭১ জন। মিয়ানমারে নিযুক্ত জাতিসংঘ দূত ক্রিস্টিন স্করেনার বার্জানার রক্তক্ষয়ী এ হতাকান্ডে কঠোর নিন্দা জানিয়েছেন।

এদিকে অভ্যুত্থানবিরোধরীরা আরও বিক্ষোভের পরিকল্পনা করছেন জানতে পেরে জান্তা মিয়ানমারের প্রধান শহর ইয়াঙ্গুনের কয়েকটি এলাকায় অংশবিশেষে ‘মার্শাল ল’ জারি করেছে। এছাড়া, সেনা সরকার সু চির বিরুদ্ধে আনা অভিযোগের শুনানি ১০ দিন পিছিয়েছে।

পাখির মতো মানুষ মারল মিয়ানমার জান্তা

রবিবার শিল্প এলাকা হিসেবে পরিচিত হ্লায়াইং থারইয়ায় চীনের বেশ কয়েকটি কারখানায় হামলা চালান বিক্ষোভকারীরা। এ সময় তারা দুইটি কারখানায় অগ্নিসংযোগ করেন। পুলিশ বিক্ষোভকারীদের ওপর গুলি চালায়। এ সময় ছুরি ও লাঠি হাতে নিজেদের রক্ষার চেষ্টা করেন বিক্ষোভকারীরা। সংঘর্ষ শুরু হলে তাদের ওপর নির্বিচারে গুলি চালায় নিরাপত্তাবাহিনী। এতে ৩৯ জনের মৃত্যু হয়।

অ্যাডভোকেসি গ্রুপ অ্যাসিসট্যান্স অ্যাসোসিয়েশন ফর পলিটিক্যাল প্রিজনারসকে (এএপিপি) দেশটির এক প্রত্যক্ষদর্শী সাংবাদিক বলেন, ‘এটা ভয়ঙ্কর। আমি চোখের সামনে গুলি করে বিক্ষোভকারীদের হত্যা করতে দেখেছি। এমন নৃশংস দৃশ্য জীবনেও ভুলতে পারব না।’

তিনি আরও বলেন, চোখের সামনে গুলি করে পাখির মতো মানুষ মেরে ফেলছে জান্তা সরকার।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে জানান, রবিবার সারা দিন গুলির শব্দ শোনা যায় এবং রাস্তায় সামরিক ট্রাকের টহল ছিল। এক পুলিশ সদস্য সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লেখেন, পুলিশ ভারী অস্ত্র ব্যবহারের পরিকল্পনা করছে। পরে পোস্ট মুছে ফেলে টিকটক পোস্টে ওই পুলিশ কর্মকর্তা বলেন, কোনো দয়া দেখাবো না।

অ্যাডভোকেসি গ্রুপ অ্যাসিসট্যান্স অ্যাসোসিয়েশন ফর পলিটিক্যাল প্রিজনার্স (এএপিপি) জানিয়েছে, রবিবার নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে অন্তত ৭০ বিক্ষোভকারী নিহত এবং ১২৯ জন হয়। এ নিয়ে দেশটিতে চলমান বিক্ষোভে নিহতের সংখ্যা ১৮০ জনে ছাড়িয়েছে। ডাক্তার এবং উদ্ধারকারীরা আরও নিহতের আশঙ্কা করছেন।

সু চির শুনানি বাতিল
মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলের অং সান সু চির শুনানি বাতিল করেছে জান্তা সরকার। আজ সোমবার সু চির আইনজীবী আইনজীবী খিন মং ঝাও বলেন, এখানে কোনো ইন্টারনেট নেই। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে শুনানি হওয়ার কথা ছিল। আমরা ভিডিও কল করতে পারিনি কয়েক সপ্তাহ ধরে প্রতি রাতে ইন্টারনেট বন্ধ রাখছে মিয়ানমার কর্তৃপক্ষ, সকালে নেটওয়ার্ক খুলে দেয়া হয়। কিন্তু সোমবার দিনের বেলায়ও ইন্টারনেট নেটওয়ার্ক বন্ধ ছিল।

রয়টার্সের খবরে বলা হয়, মিয়ানমারজুড়ে মোবাইল ডেটা নেটওয়ার্ক কাজ না করায় সোমবার দেশটির ক্ষমতাচ্যুত নেত্রী অং সান সু চির শুনানি বাতিল করা হয়েছে। গত ১ ফেব্রুয়ারি সামরিক অভ্যুত্থানের মাধ্যমে তাকে আটক করে সেনাবাহিন। অং সান সু চিকে সোমবার স্থানীয় সময় সকাল ১০টায় রাজধানী নেপিডোতে ভিডিও শুনানিতে হাজির করার কথা ছিল।

মার্শাল ল’ জারি
রবিবারের বিক্ষোভ-সহিংসতার জেরে ইয়াঙ্গুনের হ্লাইংথায়া ও সুয়েপিয়েথা এলাকায় মার্শাল ল’ জারি করা হয়েছে। তবে এক দিনে সর্বোচ্চসংখ্যক প্রাণহানির পর সোমবার আবারও রাস্তায় বিক্ষোভ করেছে জনতা। মিয়ানমারের গণতন্ত্রপন্থীরা জানিয়েছেন, জান্তার বুলেটের মুখে তারা থামবেন না।

আরও পড়ুন
প্রবাসের সংবাদ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত