ঢাকা, ২৬ নভেম্বর, ২০২০
SylhetNews24.com
শিরোনাম:
করোনায় আরো ৩২ জনের মৃত্যু ধর্ম প্রতিমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন ফরিদুল হক খান ভারতীয় ‘ক্রাইম পেট্রোল’ দেখে ভাই-ভাবিসহ ৪ জনকে হত্যা সুনামগঞ্জ পৌর পানি শোধনাগার উদ্বোধন করলেন পরিকল্পনামন্ত্রী জগন্নাথপুর বিবি এডুকেশন ট্রাস্টের বিরুদ্ধে অপপ্রচারে লিপ্ত করিম

‘আপন কন্যা’ কমলার জন্য ভারতে চলছে উৎসবের প্রস্তুতি

অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশিত: ৭ নভেম্বর ২০২০  

মার্কিন নির্বাচনের ফলাফল এখনো জানা না গেলেও জয়ের কাছাকাছিই দাঁড়িয়ে রয়েছেন ডেমোক্রেটিক দলের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী জো বাইডেন। 

মাঝপথে কয়েকটি অঙ্গরাজ্যে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের একপর্যায়ে জয়ের পাল্লা ভারী হয়ে যায় তাঁর। সেইসঙ্গে বাইডেনের রানিংমেট এবং প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ ও ভারতীয় বংশোদ্ভূত নারী হিসেবে ভাইস প্রেসিডেন্ট পদ থেকে অল্প দূরে রয়েছেন কমলা হ্যারিস।

আর তাই ‘আপন কন্যা’ কমলা হ্যারিসের জন্য ভারতের কাছে বিশেষ হয়ে উঠছে বাইডেনের জয়ের হিসাব। তাঁর জন্য ভারতে চলছে উৎসবের প্রস্তুতি, চলছে প্রার্থনাও।

মার্কিন রাজনীতিক বিশ্লেষেকরা বলছেন, কমলাকে দিয়ে শ্বেতাঙ্গদের সঙ্গে অভিবাসী ও কৃষ্ণাঙ্গদের মধ্যে বিভাজনের রাজনীতির ইতি টানতে চাইছেন ডেমোক্র্যাটরা।

ডেমোক্র্যাটদের হয়ে ভাইস প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হিসেবে নাম ঘোষণার পরই কমলা হ্যারিসকে নিয়ে কৌতূহল তৈরি হয় সারাবিশ্বে—কে এই কমলা হ্যারিস?

ভারতীয় ঐতিহ্যের সঙ্গে মিল রেখে সৌভাগ্য, সৌন্দর্য ও শক্তির দেবী লক্ষ্মীর প্রতীক আর সংস্কৃত শব্দ কমল বা পদ্মফুলের সমার্থক শব্দে মেয়ের নাম কমলা রেখেছিলেন ভারতের তামিলনাড়ু রাজ্যের শ্যামলা গোপালান। 

আজ সেই মেয়েরই বাগ্মিতা, যুক্তি আর ক্ষুরধার কৌশলে ভর করে নির্বাচনের বৈতরণী পার হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের ডেমোক্রেট দলীয় প্রেসিডেন্ট প্রার্থী জো বাইডেন।

১৯৬১ সালে ক্যালিফোর্নিয়া ইউনিভার্সিটিতে কমলা হ্যারিসের মা শ্যামলার সঙ্গে বাবা জ্যামাইকান ডোনাল্ড হ্যারিসের পরিচয়। ১৯৬৪ সালের ২০ অক্টোবর শ্যামলা আর ডোনাল্ডের সংসারে আসে কমলা। 

১৯৬৭ সালে জন্ম নেয় কমলার বোন মায়া লক্ষ্মী হ্যারিস। তবে কমলার বয়স যখন মাত্র সাত, তখন বিচ্ছেদ হয় মা-বাবার। ‘দ্য ট্রুথস উই হোল্ড, অ্যান আমেরিকান জার্নি’ নামে আত্মজীবনীতে এমনটাই লিখেছেন কমলা।

কমলা জানিয়েছেন, দুই মেয়ে যেন শেকড় ভুলে না যায়, তাতেও ছিল তাঁর মা শ্যামলার কড়া দৃষ্টি। গির্জার পাশাপাশি মেয়েদের যেতে হতো হিন্দু মন্দিরেও। এ ছাড়া, বাল্যকালে ভারতে বেড়াতে যাওয়া কমলার ওপর রয়েছে নানাবাড়ির প্রভাব।

এর মধ্যে ২০১৬ সালে প্রথম ভারতীয় বংশোদ্ভূত হিসেবে মার্কিন সিনেটে জায়গা করে নেন কমলা হ্যারিস। এর মাত্র চার বছর পর ২০২০ সালে মার্কিন প্রেসিডেন্ট পদে লড়াই করারও ঘোষণা দেন। সেই লড়াইয়ে না টিকলেও সুযোগ হয়ে যায় জো বাইডেনের রানিংমেট ভাইস প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হওয়ার।

এদিকে, মার্কিন ভোটে যখন কমলার জয়ের হাওয়া বইছে, তখন ভারতের তামিলনাড়ুর থুলাসেন্দ্রাপুরম গ্রামে, কমলার জন্য চলছে উৎসব আয়োজনের ব্যস্ততা, চলছে প্রার্থনা। এ ছাড়া শুভেচ্ছাবার্তা জানাতে চলছে নানা রঙের আলপনা আঁকা।

আরও পড়ুন
প্রবাসের সংবাদ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত